কোরবানির চামড়া নিয়ে বিএনপির নোংরা রাজনীতি

1 min read

নিউজ ডেস্ক : কোরবানির পশুর চামড়া নিয়েও নোংরা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে বিএনপি। চামড়ার দাম কমিয়ে দেশের অর্থনীতিকে বিপর্যস্ত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে বিএনপি-জামায়াত সমর্থিত চামড়া ব্যবসায়ী চক্র।

সাধারণ চামড়া ব্যবসায়ী ও কোরবানিদাতাদের অনেকেই বিএনপি ব্যবসায়ী চক্রের ষড়যন্ত্রের শিকার হয়েছেন। তারা চামড়ার কাঙিক্ষত দাম পাননি। ফলে মাদরাসার ছাত্রদের মধ্যে যারা চামড়া সংগ্রহ করেছিলেন তারাও পড়েন বিড়ম্বনায়।

হঠাৎ কেন চামড়ার ব্যবসায় এমন ধস নামলো, এমন প্রশ্ন ঘুরছে মানুষের মনে। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কোরবানির পর চামড়া নিয়ে এমন চক্রান্ত হতে পারে, বিষয়টি অনুধাবন করে আগেই নির্দিষ্ট মূল্য নির্ধারণ করে দেয় সরকার। কারণ সরকার চায়নি ট্যানারি মালিকরা সাধারণ মানুষদের ঠকিয়ে চামড়ার দাম আরো কমিয়ে ফেলুক।

অনুসন্ধানে জানা গেছে, বিএনপিপন্থী চামড়া মালিক সমিতির কিছু চক্র সরকারকে বিব্রতকর পরিস্থিতিতে ফেলতে এমন সিন্ডিকেট তৈরি করে।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ট্যানারি অ্যাসোসিয়েশনের এক সদস্য বলেন, চামড়া বাংলাদেশের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ শিল্প। এ শিল্পকে ধ্বংস করার পাঁয়তারা করছে বিএনপি সমর্থিত কয়েকজন ব্যবসায়ী। তাদের আধিপত্যের কারণে চামড়া ব্যবসা আজ ধ্বংসের মুখে।

তিনি আরো বলেন, বিএনপি সমর্থিত কিছু চামড়া ব্যবসায়ী একটি সিন্ডিকেট বানিয়ে সরকারের বেঁধে দেওয়া দামকে উপেক্ষা করে সাধারণ গরিব-দুঃখীর ওপর এই অত্যাচার চালান, যা খুবই দুঃখজনক।

এ প্রসঙ্গে কাঁচা চামড়া আড়তদার সমিতির সহ-সভাপতি আবদুল কাদের বলেন, সরকারের বিপক্ষে গিয়ে বিএনপি সমর্থিত একটি গোষ্ঠী চামড়া ব্যবসাকে ধ্বংস করে দিতে চাইছে, যা মেনে নেয়া যায় না। সরকার যে দাম বেঁধে দিয়েছে সেই দাম দিলেই চলবে, দামে সমস্যা হবে না। দুঃখের কথা হচ্ছে; এবার বিএনপির ঐ ব্যবসায়ীদের কারণে কিছু ট্যানারি মালিক নিরুৎসাহিত হয়েছেন।

আরও পড়তে পারেন

+ There are no comments

Add yours